Homeবিনোদোনভাড়া নিয়ে কথা কাটাকাটি চলন্ত বাস থেকে ফেলে চাপা দিয়ে হত্যা!

ভাড়া নিয়ে কথা কাটাকাটি চলন্ত বাস থেকে ফেলে চাপা দিয়ে হত্যা!

রাজধানীর যাত্রাবাড়ীতে ভাড়া নিয়ে বিরোধের জেরে হেলপারের ধাক্কায় তুরাগ পরিবহনের নিচে পড়ে আবু সায়েম মুরাদ (৩৫) নামের এক যাত্রীর মৃত্যু হয়েছে।

শনিবার (১৫ অক্টোবর) সন্ধ্যায় যাত্রাবাড়ীর শহীদ ফারুক রোড এলাকায় এ ঘটনাটি ঘটে। মুমূর্ষু অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে জরুরি বিভাগে নিয়ে গেলে চিকিৎসক সন্ধ্যা ৭টায় মৃত ঘোষণা করেন।

দুর্ঘটনার পর উত্তেজিত যাত্রী ও জনতা চালক এবং হেলপারের ওপর হামলা চালায়। বিক্ষুব্ধ জনতা বাসে ভাঙচুর ও আগুন ধরিয়ে দেয়। পরে চালক ও হেলপারকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে তারা।

খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

আরো পড়ুনঃ   অ্যানিমেশন চলচ্চিত্র ‘মুজিব আমার পিতা’ মুক্তি পাচ্ছে ১ অক্টোবর
আরো পড়ুনঃ   পায়ের পুরনো ইনজুরি নিয়ে দাঁড়াতে পারছেন না শুভ, আছেন পূর্ণ বিশ্রামে

মুরাদের বড় ভাই আবু সাদাতের অভিযোগ, মুরাদ মতিঝিলে একটি বায়িং হাউসে কাজ করেন। বিকেলে মতিঝিল থেকে ৮ নম্বর বাসে করে যাত্রাবাড়ীর বাসায় ফিরছিলেন। বাসের হেলপার তাকে মারধর করে শহীদ ফারুক সড়কে চলন্ত বাস থেকে ফেলে দেয়। এরপর বাসের চাকার তলে পড়ে তার মৃত্যু হয়।

যাত্রাবাড়ী থানার ভারপাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাজারুল ইসলাম বলেন, সড়ক দুর্ঘটনায় একটা ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে উত্তেজিত জনতা সেই বাসে আগুন ধরিয়ে দিয়েছে। তবে আগুনে যাত্রীবাহী বাসের আংশিক ক্ষতি হয়েছে। পরিস্থিতি এখন নিয়ন্ত্রণে।

নবজাতক মৃত্যুর ঘটনায় গাইবান্ধার বোনারপাড়া হসপিটাল সিলগালা

গাইবান্ধা প্রতিনিধি: গাইবান্ধার সাঘাটায় সিজারিয়ান অপারেশনের সময় নবজাতকের মুত্রদ্বার ও শরীর কেটে ফেলায় মৃত্যুর ঘটনায় বোনারপাড়া ডিজিটাল হসপিটাল সিলগালা করেছে প্রশাসন। তবে প্রশাসনের অভিযানের খবর পেয়ে...

সর্বশেষ সংবাদ